শাহবাগে প্রগতিশীল ছাত্রসংগঠনের প্রতিবাদ সমাবেশে হামলার এবার মামলা পুলিশের

Anweshan Desk

মানবাধিকার ডেস্ক

০৮ অগাস্ট ২০২২, ২০:২৩ পিএম


শাহবাগে প্রগতিশীল ছাত্রসংগঠনের প্রতিবাদ সমাবেশে হামলার এবার মামলা পুলিশের

জ্বালানি তেলের লাগামহীন মূল্যবৃদ্ধির প্রতিবাদে রাজধানীর শাহবাগ মোড়ে রোববারে বামপন্থী ছাত্রসংগঠনগুলোর ডাকা বিক্ষোভ সমাবেশে হামলার পর সোমবার (৮ আগস্ট) সমাবেশে অংশগ্রহণকারীদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছে পুলিশ। রাজধানীর শাহবাগ থানায় এ মামলা করা হয়।

 

ফৌজদারি দণ্ডবিধির ১৪৩, ১৪৭, ১৪৯, ১৮৬, ৩৩২, ৩৩৩, ৩৫৩, ৩০৭ ও ১০৯ ধারায় করা এই মামলায় বাম ছাত্রসংগঠনের ২১ নেতা-কর্মীর নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাত ২০-৩০ জনকে আসামি করা হয়েছে।

মামলার এজাহার থেকে জানা গেছে, গতকালের ঘটনায় হওয়া এই মামলায় ২১ জনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাত ২০-৩০ জনের বিরুদ্ধে অভিযোগ করা হয়েছে৷ ছাত্র ইউনিয়নের একাংশের সহসভাপতি অনিক রায়কে এই মামলায় ১ নম্বর আসামি করা হয়েছে৷ এ ছাড়া ছাত্র ফেডারেশনের সভাপতি মশিউর রহমান খান রিচার্ড, বিপ্লবী ছাত্র মৈত্রীর সভাপতি সাদেকুল ইসলাম সোহেল, গণতান্ত্রিক ছাত্র কাউন্সিলের সভাপতি আরিফ মঈনুদ্দীন, পাহাড়ি ছাত্র পরিষদের সভাপতি সুনয়ন চাকমা, বিপ্লবী ছাত্র-যুব আন্দোলনের সভাপতি তৌফিকা প্রিয়া, সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্টের (মার্ক্সবাদী) ভারপ্রাপ্ত সভাপতি জয়দীপ ভট্টাচার্য ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সাবেক সভাপতি সালমান সিদ্দিকী, ছাত্র ইউনিয়নের সদস্য শান্তা ও ছাত্র ফেডারেশনের জুবা মনিকেও আসামি করা হয়েছে।

 

উল্লেখ্য, মতপ্রকাশের স্বাধীনতা, শান্তিপূর্ণ প্রতিবাদ বিক্ষোভের স্বাধীনতা বাংলাদেশের প্রত্যেক নাগরিকের সাংবিধানিক মৌলিক অধিকার। আন্তর্জাতিক আইনেও এই অধিকারগুলো সার্বজনীন অধিকার হিসেবে স্বীকৃত। বাংলাদেশের বর্তমান ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ সরকারের আমলে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর দ্বারা মত প্রকাশের স্বাধীনতা এবং শান্তিপূর্ন প্রতিবাদ বিক্ষোভের স্বাধীনতার অধিকারগুলো বারবার লঙ্ঘিত হচ্ছে বলে সরকার বিরোধী রাজনৈতিক দল এবং ভিন্নমতাবলম্বীদের পক্ষ থেকে অভিযোগ উঠছে। এছাড়া, আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংগঠনগুলোও এ বিষয়ে তাঁদের উদ্বেগের কথা বারবার জানালেও সরকারের পক্ষ থেকে এগুলো সুরক্ষায় কোন ব্যবস্থা নিতে দেখা যাচ্ছে না, যার ফলে দেশে গণতান্ত্রিক পরিবেশ দিনে দিনে সংকুচিত হয়ে যাচ্ছে। 

 

 

২১১ বার পঠিত

মানবাধিকার থেকে আরও


Link copied