নারায়ণগঞ্জে দিনদুপুরে অস্ত্র দেখিয়ে চাঁদা দাবি, হিন্দু জুয়েলারি ব্যবসায়ীকে মারধর

Anweshan Desk

জাতীয় ডেস্ক

২৪ জুলাই ২০২২, ২২:৩৮ পিএম


নারায়ণগঞ্জে দিনদুপুরে অস্ত্র দেখিয়ে চাঁদা দাবি, হিন্দু জুয়েলারি ব্যবসায়ীকে মারধর

নারায়ণগঞ্জ জেলার রূপগঞ্জে দিনদুপুরে এক হিন্দু স্বর্ণালংকার ব্যবসায়ীর দোকানে অস্ত্র দেখিয়ে চাঁদা দাবির ঘটনা ঘটেছে। চাঁদা দিতে রাজি না হওয়ায় ওই দোকানমালিককে মারধর করা হয়েছে। রূপগঞ্জের মুড়াপাড়া বাজারে  শনিবার (২৩ জুলাই) দুপুরে এ ঘটনা ঘটে। 

 

মারধরের শিকার হিন্দু ব্যবসায়ীর নাম রানা পোদ্দার।

এই ঘটনা সম্পর্কে ভিক্টিম রানা পোদ্দার বলেন, 'শনিবার দুপুরে তাঁর প্রতিষ্ঠান পোদ্দার জুয়েলারি ওয়ার্কশপের সামনে সাত–আটজন তরুণ অবস্থান নেন। তাঁদের মধ্যে দুজন দোকানের ভেতরে প্রবেশ করে দুই লাখ টাকা চাঁদা দাবি করেন। চাঁদা দিতে রাজি না হলে এক তরুণ কোমরে থাকা পিস্তল বের করে রানার দিকে তাক করেন। তাতেও চাঁদা না দিলে তরুণেরা দোকানের সিসিটিভি ক্যামেরার সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে তাঁকে মারধর করেন। তখন দোকানে থাকা কর্মচারীরা ডাকাত বলে চিৎকার করলে ওই তরুণেরা পালিয়ে যান।'

সিসিটিভির ফুটেজ দেখে অস্ত্রধারী তরুণকে শনাক্ত করেছেন মুড়াপাড়া বাজার কমিটির সাধারণ সম্পাদক মানিক মিয়া।  তিনি জানান, অস্ত্রধারী ওই তরুণের নাম ফাহিম মোল্লা। ফাহিম মুড়াপাড়া ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক সদস্য সেলিম মোল্লার ছেলে। ঘটনার পর থেকে মুড়াপাড়া বাজারের ব্যবসায়ীরা আতঙ্কে আছে বলে জানান মানিক মিয়া। ফাহিম সরকারি মুড়াপাড়া কলেজের একাদশ শ্রেণির ছাত্র। 

ঘটনার পর থেকে পরিবারের লোকজনের নিরাপত্তা নিয়ে আতঙ্কিত আছেন বলে জানান রানা পোদ্দার। তিনি বলেন, বাজার কমিটির নেতাদের সঙ্গে পরামর্শ করে এ ঘটনায় মামলা করবেন।

 এ বিষয়ে রূপগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এ এফ এম সায়েদ  বলেন, এ ঘটনায় আজ রোববার বিকেল পর্যন্ত কোনো অভিযোগ পাওয়া যায়নি। ঘটনার তদন্ত করা হচ্ছে। অস্ত্রধারীকে আটকের চেষ্টা চলছে।

৮৩৫১ বার পঠিত

জাতীয় থেকে আরও


Link copied