এবার নাজিরপু্রে মন্দিরে হামলা, কালী ও শীতলা প্রতিমা ভাঙচুর

Anweshan Desk

ধর্মীয় সংখ্যালঘু নির্যাতন

০৬ অগাস্ট ২০২২, ২১:৩১ পিএম


এবার নাজিরপু্রে মন্দিরে হামলা, কালী ও শীতলা প্রতিমা ভাঙচুর

পিরোজপুরের নাজিরপুর উপজেলার একটি মন্দিরের কালী ও শীতলা প্রতিমা ভাঙচুরের ঘটনা ঘটেছে। শনিবার (৬ আগস্ট) উপজেলার শাখারীকাঠী ইউনিয়নের উত্তর হোলাবুনিয়া সার্বজনীন কালী ও শীতলা মন্দিরে একটি বিশেষ ধর্মের উগ্রপন্থী সাম্প্রদায়িক সন্ত্রাসীরা এ ঘটনা ঘটিয়েছে বলে ভুক্তভোগীদের পক্ষ থেকে অভিযোগ করা হয়েছে। 

No photo description available.

নাজিরপুর উপজেলা হিন্দু, বৌদ্ধ, খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের সাধারণ সম্পাদক তিমির হালদার জানান, বছরে একবার পূজা হয় বলে এ মন্দিরের কোনো স্থায়ী পুরোহিত বা সেবাইত নেই। সকালে স্থানীয়রা কালী ও শীতলা প্রতিমা ভেঙে মন্দিরের ভিতরেই ফেলে রাখতে দেখে। বিষয়টি পুলিশকে জানালে তারা ঘটনাস্থলে যান। “সাম্প্রদায়িক সমস্যা তৈরি জন্যই একটি চক্র এ ঘটনা ঘটিয়ে থাকতে পারে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করছি।”

পিরোজপুরের অতিরিক্তি পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) খায়রুল হাসান জানান, পুলিশ ও প্রশাসনের বিভিন্ন স্তরের কর্মকর্তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। উত্তর হোলাবুনিয়া সার্বজনীন কালী ও শীতলা মন্দিরের নতুন প্রতিমা স্থাপনের জন্য প্রশাসনের পক্ষ থেকে ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে। এ ছাড়া নিরাপত্তার জন্য মন্দিরের অবকাঠামো উন্নয়ন ও সিসি টিভি ক্যামেরা লাগানো হবে বলে জানান তিনি।

তিনি আরও জানান, এ বিষয়ে আইনগত ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন আছে এবং ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা করা হচ্ছে।

উল্লেখ্য, গত ১ আগস্ট পিরোজপুর সদর উপজেলার দুর্গাপুর ইউনিয়নের কাথুলিয়া এলাকায় একটি শীতলা মন্দিরের প্রতিমা ভাঙচুরের ঘটনা ঘটে এবং ওই ঘটনার সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে চার মুসলমান তরুণকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।

২৩১ বার পঠিত

ধর্মীয় সংখ্যালঘু নির্যাতন থেকে আরও


Link copied